‘শান্ত-মারিয়াম ইউনিভার্সিটি অব ক্রিয়েটিভ টেকনোলজির ইন্টেরিয়র আর্কিটেকচার ডিপার্টমেন্টের ২০তম ব্যাচের ফাইনাল থিসিস জুরি’

23 May 2017

Location: Uttara,Dhaka

এই অঞ্চলের প্রথম ক্রিয়েটিভ বিশ্ববিদ্যালয় শান্ত-মারিয়াম ইউনিভার্সিটি অব ক্রিয়েটিভ টেকনোলজির ইন্টেরিয়র আর্কিটেকচার বিভাগের অষ্টম সেমিষ্টারের ২০তম ব্যাচের শিক্ষার্থীদের ফাইনাল থিসিস জুরি গতকাল মঙ্গলবার সকাল ১০.০০ টায় উত্তরাস্থ শান্ত-মারিয়াম ইউনিভার্সিটি অব ক্রিয়েটিভ টেকনোলজির ক্রিয়েটিভ হাবে অনুষ্টিত হয়। উক্ত ফাইনাল জুরিতে উপস্থিত ছিলেন শান্ত-মারিয়াম ফাউন্ডেশনের ভাইস-চেয়ারম্যান ডা: আহসানুুল কবির, শান্ত-মারিয়াম ইউনিভার্সিটি অব ক্রিয়েটিভ টেকনোলজির ফ্যাকাল্টি অব ডিজাইন এন্ড টেকনোলজির ডিন প্রফেসর ড. আবদুল হালিম শেখ, রেজিষ্ট্রার স্থপতি হোসনে আরা রহমান, কন্ট্রোলার অব এক্সাম প্রফেসর আব্দুস সালাম, হেড অব ইন্টেরিয়র আর্কিটেকচার ডিপার্টমেন্ট স্থপতি এএফএম মহিউদ্দিন আখন্দ, হেড অব আর্কিটেকচার ডিপার্টমেন্ট স্থপতি সেলিনা আফরোজ, ইন্টেরিয়র আর্কিটেকচার ডিপার্টমেন্টের কো-অর্ডিনেটর ফারহানা চৌধুরী। অনুষ্ঠান আয়োজনে ছিলেন ইন্টেরিয়র আর্কিটেকচার ডিপার্টমেন্টের ফ্যাকাল্টি মেম্বার পালওয়ান হায়দার, সৈয়দ নোমান মাহমুদ, জান্নাতুল তাবাসছুম এবং জান্নাতুল ফেরদৌস নিলা। উক্ত ফাইনাল থিসিচ জুরিতে এক্সটারনাল হিসেবে উপস্থিত ছিলেন আর্কিটেক্ট হারুন জাফর, আর্কিটেক্ট আমিনুল হক ও আর্কিটেক্ট হেলাল উদ্দিন (চিফ আর্কিটেক্ট এল.জি.ই.ডি.)। ডিপার্টমেন্টের শিক্ষার্থীরা জুরি সদস্যদের ফুলেল শুভেচ্ছা জানিয়ে সম্মান প্রদর্শন করে। জুরি সদস্যরা ইন্টেরিয়র আর্কিটেকচার ডিপার্টমেন্টের ২০তম ব্যাচের ফাইনাল থিসিস জুরিতে অংশগ্রহণকারী শিক্ষার্থীদের সৃজনশীলতার প্রশংসা করেন পাশাপাশি তাদের কাজের পর্যালোচনা করে উপদেশ প্রদান করেন। আজ সকাল ১০.০০ টায় বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য প্রফেসর ড. কাজি মো: মফিজুর রহমান উপস্থিত থেকে শিক্ষার্থীদের প্রজেক্ট উপর ভিত্তি করে এক বর্ণাঢ্য এক্সিবিশনের উদ্বোধন করবেন। উক্ত জুরিতে মোট ২৩জন শিক্ষার্থীদের সক্রিয় অংশগ্রহণে ২০তম ব্যাচের ফাইনাল থিসিস জুরি প্রাণবন্ত হয়ে ওঠে। তাছাড়া বিশ্ববিদ্যালয়ের অন্যান্য বিভাগের শিক্ষক ও শিক্ষার্থীরা এ জুরি অনুষ্ঠানে উপস্থিত থেকে ইন্টেরিয়র আর্কিটেকচার ডিপার্টমেন্টের শিক্ষার্থীদের উৎসাহ প্রদান করেন।